আবার ফিরছে অপু

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

১৯৫৯ সালে মুক্তি পেয়েছিল সত্যজিৎ রায় পরিচালিত ‘অপুর সংসার’। ছবিটি ঠিক যেখানে শেষ করেছিলেন কিংবদন্তি পরিচালক সত্যজিৎ রায় ‘অভিযাত্রিক’-এর গল্প ঠিক সেখান থেকেই শুরু করেছেন টালিগঞ্জের পরিচালক শুভ্রজিৎ মিত্র। ‘অভিযাত্রিক’ ছবিতে উঠে আসবে অপু ও তাঁর ছেলে কাজলের কথা। ১৯৫৯ সালে ‘অপুর সংসার’ ছবিতে ছেলেকে নিয়ে বেরিয়ে যেতে দেখা গিয়েছিল অপুকে। এবার সেই ছেলে কাজলের হাত ধরে ঘরে ফিরবে অপু।
অপু এই অপু, কোথায় তুই? দূর থেকে ভাইকে খুঁজে বেড়াচ্ছে দুর্গা। দিদির কাছে অপুর আবদার রেলগাড়ি দেখতে যাবি দিদি? চল না’। কয়েকদিন আগে মুক্তি পাওয়া ‘অভিযাত্রিক’ ছবির টিজারে অপু-দূর্গার এমনই সব সংলাপ শোনা গেলো।
অপু-দুর্গার কথাবার্তার পর অভিযাত্রিকের টিজারের পরবর্তী ধাপে আবার পরিণত বয়সের অপুর সঙ্গে তাঁর ছেলে কাজলের কথাবার্তা শোনা যায়। তারপর একে একে লীলা, অপর্ণা, রানু দিদি, অপুর বন্ধু শঙ্কর সকলের কথাবার্তার সঙ্গে সাদাকালোতে আঁকা টুকরো কিছু ছবিও ধরা পড়লো। টিজারের শেষপর্যায়ে শোনা গেল অপু তাঁর ছেলে কাজলকে দেশের বাড়ি নিশ্চিন্দিপুরে যাওয়ার প্রস্তাব দিচ্ছে। ‘অভিযাত্রিক’-এর টিজারে এভাবেই ফের একবার ফিরে এল বাঙালির হৃদয়ের খুব কাছের সেই অপু চরিত্রটি।
এই ছবিতে অপু ও তাঁর ৬ বছরের ছেলে কাজলের সম্পর্কের ছবিই আঁকা হবে। অর্থাৎ বিভূতিভূষণ বন্দ্যোপাধ্যায়ের ‘অপরাজিত’ উপন্যাসের শেষটুকু নিয়ে এই ছবি বানিয়েছেন পরিচালক শুভ্রজিৎ মিত্র। শনিবার মুক্তি পাওয়া ‘অভিযাত্রিক’-এর টিজারে সাদাকালো পেনসিল স্কেচে আঁকা ছবিতে আরও একবার ফিরে এলো বাঙালির প্রিয় সেই ‘অপু ট্রিলজি’র নস্টালজিয়া।
ছবিতে অপুর ভূমিকায় দেখা যাবে কলকাতার অভিনয় শিল্পী অর্জুন চক্রবর্তীকে। অপর্ণার চরিত্রে অভিনয় করবেন দিতিপ্রিয়া রায়, লীলার ভূমিকায় অর্পিতা চট্টোপাধ্যায়, অপুর বন্ধু শঙ্করের ভূমিকায় সব্যসাচী চক্রবর্তী, বউরানির ভূমিকায় তনুশ্রী শঙ্কর ও রানু দিদির ভূমিকায় শ্রীলেখা মিত্র। অপুর ছেলে কাজলের ভূমিকায় দেখা যাবে আয়ুষ্মান মুখোপাধ্যায়কে।

বিনোদন ডেস্ক
তথ্যসূত্র ও ছবিঃ ২৪ ঘন্টা

প্রাণের বাংলায় প্রকাশিত সব লেখা লেখকের নিজস্ব মতামত। লেখা সংক্রান্ত কোনো ধরনের দায় প্রাণের বাংলা বহন করবে না। প্রাণের বাংলার কোনো লেখা কেউ বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করতে পারবেন না তবে সোশ্যাল মিডিয়াতে শেয়ার করতে পারবেন । লেখা সংক্রান্ত কোনো অভিযোগ অথবা নতুন লেখা পাঠাতে যোগাযোগ করুন [email protected]