পাহাড় ডাকছে…

ফেইসবুক।সবার কাছেই জনপ্রিয় এই শব্দটি। তাই প্রাণের বাংলায় আমরা সংযুক্ত করলাম ফেইসবুক কথা বিভাগটি।এখানে ফেইসবুকের আলোচিত এবং জনপ্রিয় লেখাগুলোই  আমরা পোস্ট করবো।আপনার ফেইসবুকে তেমনি কোন লেখা আপনার চোখে পড়লে আপনিও পাঠিয়ে দিতে পারেন আমাদের ই-মেইলে।

তিয়াষ মুখোপাধ্যায়

এই শীত-কিন্তু-শীত-নয় মরসুমের দেওয়ালে বৃষ্টির আশকারা না ছেটালেই চলছিলো না বুঝি…!

তুমি কি জানো না, উত্তুরে হাওয়ায় জলের রেণু মিশে গেলেই আমার রিমবিকের কথা মনে পড়ে…? তুমি জানো না, আমার মনে পড়াগুলো সবার মতো নয়…? রিমবিকের কথা মনে পড়া মানে তো আমার শহরটাও মুহূর্তে রিমবিক হয়ে যায়…। শহরের অলিগলিচলিচলি পথগুলোয় একগাদা এবড়ো খেবড়ো পাহাড়ি পাথর সেজে যায়…। মেট্রোর প্ল্যাটফর্মে সাবওয়েতে ঢোকার ঢালটা উতরাই হয়ে যায়…। চিৎকার করতে করতে ছুটে চলা গাড়িগুলো বড় বড় গাছ সেজে খাদের ধারে দাঁড়িয়ে পড়ে…। তাদের পায়ে পায়ে বুনো ফার্নের পেছন দিকের খয়েরিতে জমে যায় ট্র্যাফিক জ্যামের ধৈর্য্য…। ওই হাইরাইজগুলো যে দূরের উঁচু শৃঙ্গের মতোই গম্ভীর চোখে আমার দিতে তাকিয়ে থাকে, সে কথা বলিনি তোমায়…? আর ওই মিষ্টির দোকানের গদিতে বসে থাকা মোটা মারোয়াড়ি ভদ্রলোক তখন দুম করে সরুচোখ-বোঁচানাক-চওড়াহাসি-রেশমিচুল লাকপা দাজুতে ক্যামোফ্লেজ করে নেয়…।

হ্যাঁ, আমার মনে আছে তো… লাকপা দাজুর মেয়ে বড় ভাল কফি বানায়…। পোড়া পাহাড়ের গন্ধ সে কফিতে…। শুনেছি তোমরা সে পোড়া গন্ধের নাম দিয়েছো গোর্খাল্যান্ড…?

জানো তো এ সবই…? তবু মাঝে মাঝে মজা দেখতে ইচ্ছে হয়, নাকি…?

আজ বিকেলে যখন চা খেতে বেরিয়েছিলাম, তুমুল প্রেমের মতো বেপরোয়া ভাবে বৃষ্টিভেজা ঠান্ডা হাওয়ার শিরিশিরি আমায় জড়িয়ে ধরছিলো…। অফিসের এক দাদার কাছ থেকে ধার করা ওভারকোট চাপিয়ে ইমোশন সামাল দিতে দিতে হাঁটছিলাম…। সামাল দেওয়ার চেষ্টায় জল ঢেলে দিয়ে বেন্টিঙ্ক স্ট্রিটের মোড় তখন বদলে গিয়েছে রিমবিক বাজারে…। ওভারকোটটা ঝুপ্পুস পঞ্চু…। স্পষ্ট টের পাচ্ছি, দূরে দাঁড়িয়ে হাসছো তুমি…। মজা পাচ্ছো আমার হুব্বাবস্থা দেখে…। এই যে আমায় মরিচীকার মতো পাহাড় ভ্রমে ঠেলে দিচ্ছো বারবার….. অনেক ক্ষণ ধরে খাবারের গল্প করে ভিখারিকে খেতে না দেওয়ার পাপ লাগছে তোমার গায়ে, টের পাচ্ছো…?

এ সব আর নেওয়া যাচ্ছে না মোটে…। তোমার চোখ এড়ানো জরুরি হয়ে পড়েছে…। পালাবো…। কোথায় যাবো বলে যাবো না…। জাস্ট বেরিয়ে পড়বো… । কী ভাবছো, পিঠে থাকবে রুকস্যাক, পরা থাকবে কার্গো, আর পায়ে থাকবে জুতো…? ভুল ভাবছো…। স্কুল ছুটির পরে যেমন করে ছুট্টে বেরোতাম, তেমনি হবে এই বেরোনো…। তুমি ভাববে, বাড়িই ফিরছে ঠিক…।

শুধু আমি জানবো, পাহাড়ে ফিরছি আমি……

গত বছরের নভেম্বর রেন এফেক্ট…❤

ছবি: লেখক