বিতর্কে বিশ্বকাপ ফাইনাল

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

আহসান শামীম

শতাব্দীর সেরা বিশ্বকাপ ফাইনাল নিয়ে বিশ্ব ক্রিকেটে চলছে বিতর্ক।শূন্য রানে কিউইদের হারিয়ে ষষ্ঠ দল হিসাবে ইংল্যান্ডের প্রথমবারের মত বিশ্বকাপের শিরোপা জয়টা অনেকের জন্যই মেনে নেয়া কঠিন।

আইন বলছে ওভার থ্রো বা ফিল্ডারের ইচ্ছেকৃত ঘটনায় বাউন্ডারি হলে রান যুক্ত হতে পারে পেনাল্টি থেকে।বাউন্ডারি থেকে আর দুই ব্যাটসম্যান দৌড়ে যত রান নিয়েছেন সেখান থেকে।

স্টোকসের বেলায় যা ঘটেছে তার লিখিত কোনও ব্যাখ্যাও নেই আইনে। গাপটিলের ওভার থ্রোতে বাউন্ডারি স্টোকসের ব্যাটে লেগেই হয়েছে। আবার ব্যাটে না লাগলে তা হয়তো আঘাত করতে পারতো স্টাম্পেই।তখনও পুরোপুরি ক্রিজে পৌঁছাননি স্টোকস। তাই বিতর্ক থাকলেও আইনে একরকম অস্পষ্টতা রয়েই গেছে।

এই দৌড়ে রান নেওয়ার বিষয়টা নিয়েই বিতর্কটা জমে উঠেছে সোশ্যাল মিডিয়ায়। আইনে আছে, থ্রোয়ের সময় যদি দুই ব্যাটসম্যান পরস্পরকে পার হয়ে যান তখনই কেবল সেই রানটা যুক্ত হবে স্কোর বোর্ডে।রিপ্লেতে দেখা যায়, দ্বিতীয় রানের সময় গাপটিলের থ্রোয়ের মুহূর্তে দুই ব্যাটসম্যান পরস্পরকে অতিক্রম করেননি।

এমসিসির সাবেক কমিটির সদস্য ও সাবেক আম্পায়ার সাইমন টাফেল মনে করছেন, ‘অনফিল্ড আম্পায়ারদের মারাত্মক ভুলের খেসারত দিয়েছে নিউজিল্যান্ড।হিট অব দ্য মোমেন্টে তাঁরা হয়তো ভেবেছে ব্যাটসম্যান পৌঁছে গেছে।রিপ্লেতে আমরা দেখেছি বিষয়টা ভিন্ন।’ টাফেলের কথায় মুহূর্তটা যথেষ্টভাবে ধরা গেলে সেখানে ৬ রান হতো না, হতো ৫ রান। আর শেষ বলে নন স্ট্রাইকে থাকতেন আদিল রশিদ।

এবিষয় কেন উইলিয়ামসন্স মনে করেন,’বিশ্বকাপ ফাইনালে এরকম অনেকগুলো ক্ষুদ্র ক্ষুদ্র ভুল সিদ্ধান্তের খেসারত দিতে হয়েছে তাঁর দলকে।বেন স্টোকসের ব্যাটে লেগে ওটা চার না অন্যকিছু সেটা এখনও বুঝিনি।’ ইংল্যান্ডের বেন স্টোকস সোজাসাপ্টা জবাব সারাজীবনই আমি এরজন্য নিউজিল্যান্ডের কেন উইলিয়ামসন্স ও নিউজিল্যান্ডবাসীর কাছে ক্ষমা চেয়ে যাবো, যদিও দোষটা আমার ছিল না। সিদ্ধান্ত দিয়েছে অনফিল্ড আম্পায়ার।আর ইংল্যান্ডের অধিনায়ক মরগান কাপ হাতে পেয়েও বিশ্বাস করতে পারেননি তাঁর দেশ বিশ্বকাপ জিতেছে।ইয়ান মরগান বলেন,’ যা হয়েছে সেটা আল্লাহর ইচ্ছায় হয়েছে।’

ছবিঃ গুগল

প্রাণের বাংলায় প্রকাশিত সব লেখা লেখকের নিজস্ব মতামত। লেখা সংক্রান্ত কোনো ধরনের দায় প্রাণের বাংলা বহন করবে না। প্রাণের বাংলার কোনো লেখা কেউ বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করতে পারবেন না তবে সোশ্যাল মিডিয়াতে শেয়ার করতে পারবেন । লেখা সংক্রান্ত কোনো অভিযোগ অথবা নতুন লেখা পাঠাতে যোগাযোগ করুন [email protected]