সিরিজ জয়ের আশায় বাংলাদেশ

 

আহসান শামীম

সফকারী ওয়েষ্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে আগামীকাল শুক্রবার, ৩০ নভেম্বর ঢাকা টেষ্ট শুরু। ২০০৯ সালের পর এই টেষ্ট দ্বিতীয় বারের মত ওয়েষ্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে সিরিজ জয়ের সম্ভাবনা হাতছানি দিচ্ছে স্বাগতিকদের। চট্রগ্রাম টেষ্ট তৃতীয় দিনে চায়ের কাপে চুমুক দেওয়ার আগেই স্বাগতিকরা চট্রগ্রাম টেষ্ট জয় করে, দুই ম্যাচের সিরিজে ১-০ ম্যাচে এগিয়ে। এখন সিরিজ জয়ের এই সুযোগটা কাজে লাগাতে মরিয়া স্বগতিক বাংলাদেশ।

ঢাকা টেষ্ট জয়টা খুব সহজ হবে বলে মনে করেন না অধিনায়ক সাকিব।যদিও ফর্মে থাকা ব্যাটসম্যান মুমিনুল অধিনায়কের সঙ্গে একমত হতে পারছেন না। ওয়েষ্ট উইন্ডিজের বিপক্ষে সিরিজ জয় করার জন্য দারুন আত্মপ্রতয়ী মুমিনুল, তাইজুল, মুশফিকরা।অবশ্য দলের ইন্জুরী আর চতুর্থ ইনিংসের ব্যাটিং নিয়েই বেশি চিন্তিত বাংলাদেশের টিম ম্যানেজমেন্ট।

বুধবার অনুশীলনে ডান হাতের আঙ্গুলে আঘাত পেয়ে মুশফিক ত্যাগ করেন অনুশীলন।দলের ফিজিও জানিয়েছেন আঘাত মারাত্মক নয়।তারপরও উইকেট রক্ষকের দায়িত্ব পালন করতে পারবেন কিনা তা নিয়ে সন্দেহ আছে। নির্বাচকরা সুনির্দিষ্ট করে কিছু না জানালেও তাদের ডাকে আজ সকালেই বগুড়া থেকে ঢাকার উদ্দেশে রওনা দিয়েছেন মধ্যাঞ্চলের হয়ে বিসিএল-এ খেলা লিটন।প্রধান নির্বাচক মিনহাজুল আবেদীন নান্নু জানিয়েছেন, “মুশফিকের বিকল্প হিসেবে ভাবা হচ্ছে লিটন দাসকে। মিঠুনের কিপিং সামর্থ্যের ওপর টিম ম্যানেজমেন্টের আস্থা একটু কম।

অনুশীলন শেষে আরও একবার মুশফিকের আঙুলের অবস্থা দেখে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে।

 আজ বৃহস্প্রতিবার মুশফিককে হাল্কা অনুশীলন করতে দেখা গেছে। লিটন দাশ সুযোগ পেলে মিঠুনের একাদশে বাদ পরার সম্ভাবনাই বেশি।নাঈম, তাইজুল মিরাজের আসন একাদশে মজবুত।চট্রগ্রামের মতই পেসারের দায়িত্বটা একাই সামাল দিতে হবে মুস্তাফিজ।এসব কিছু নির্ভর করছে ঢাকার উইকেট কেমন হবে তাঁর ওপর।

ঢাকা টেষ্টে তামিমের খেলা নির্ভর করছে, তামিমের ওপর।ইন্জুরী আক্রান্ত দল থেকে আগেই ছিটকে গেছেন ইমরুল কায়েস।তাঁর জায়গায় দলে ডাক পেয়েছেন ঘরোয়া ক্রিকেটে দারুণ পারফর্ম করা সাদমান ইসলাম অনিক।  উইন্ডিজদের বিপক্ষে প্রস্তুতি ম্যাচে ৭৩ রানের দারুণ একটা ইনিংস খেলার পরপরই নির্বাচকদের সুনজরে আসেন সাদমান। ইমরুলের ইনজুরিই তাঁর ভাগ্য খুলে দিতে যাচ্ছে বলে ধারণা করা যাচ্ছে।

স্পিনিং উইকেটে টাইগারদের বিপক্ষে সিরিজ ড্র করাকেই ‘বোনাস’ হিসেবে দেখছেন উইন্ডিজ স্পিনার জোমেল ওয়ারিকেন। ১-০ ব্যবধানে পিছিয়ে থাকা উইন্ডিজের সিরিজ ড্র করার জন্য সিরিজের দ্বিতীয় ও শেষ ম্যাচে জয়ের বিকল্প নেই বলেই জানালেন।ওয়ারিকেন বলেন, “অবশ্যই তাঁরা অনেক লম্বা সময় ধরে জয় পায়নি, যে কারনে তাঁরা এবার সিরিজ জয়ের জন্যই খেলবে। আমরাও চেষ্টা করব শেষ ম্যাচে জিততে, যাতে করে আমরা সিরিজ ড্র করতে পারি।”
নিজেদের মাটিতে পেস বোলিং নির্ভর উইকেট বানিয়ে বাংলাদেশকে টেস্ট সিরিজে ২-০ ব্যবধানে হোয়াইটওয়াশ করেছিল উইন্ডিজ। এবার নিজেদের মাঠে সেই হারের প্রতিশোধ নিতে প্রস্তুত বাংলাদেশ দল, এমনটাই মনে করেন উইন্ডিজ স্পিনার জোমেল ওয়ারিকেন।ওয়েষ্ট উইন্ডিজের দুই সেরা বোলার চাতারা  ইন্জুরীর কারনে দেশে ফিরে গেছেন আর আইসিসির শাস্তির কারনে ঢাকা টেষ্ট খেলতে পারছেন না,অন্যতম পেসার গ্যাব্রিয়েলের।চট্রগ্রাম টেষ্ট জয়ের পর দুলই সমান সংখ্যক ৬৭ পয়েন্ট নিয়ে পয়েন্ট টেবিলে অষ্টম ও নবম স্থানে অবস্থান করছে। সিরিজ জিতলেই বাংলাদেশ টেষ্ট ক্রিকেট অষ্টম স্থানটা পোক্ত করে নেবে।

ছবি: গুগল