সেরা খেলাটা খেলতে চায় টাইগাররা

আহসান শামীম

‘শক্তিমত্তার দিক থেকে আফগানিস্তানের চেয়ে বেশ এগিয়ে বাংলাদেশ। বিশ্বকাপে যথেষ্ট লড়াই করেছেন সাকিব,মুশফিকরা। তারপরও আফগানদের বিপক্ষে আজকের খেলা নিয়ে বাংলাদেশ খুবই সতর্ক। ভয় নয়, আফগানদের সম্মান করে বাংলাদেশ।’ জানালেন দলের কোচ স্টিভ রোডর্স।

বাংলাদেশ দলের বর্তমান অবস্থা বিবেচনায় বিশ্বকাপের সেমিফাইনাল নিয়ে ভাবতে চান না জাতীয় দলের প্রধান নির্বাচক মিনহাজুল আবেদীন নান্নু। আপাতত তার ভাবনায় আফগানিস্তানের বিপক্ষে বাংলাদেশের আজকের ম্যাচটা।

বাংলাদেশ দলের অলরাউন্ডার মোসাদ্দেক হোসেন ইনজুরি কাটিয়ে উঠেছেন। আফগানিস্তানের বিপক্ষে পরবর্তী ম্যাচ খেলার জন্যও পুরোপুরি প্রস্তুত তিনি।মোসাদ্দেকের কারনে একাদশ থেকে বিদায় নিতে হবে সাব্বিরকে।অজিদের বিপক্ষে একাদশে জায়গা পেয়েও নিজেকে মেলে ধরতে পারেননি সাব্বির।ক্যাচ হাতছাড়া ও রান আউট মিসের সাথে ব্যাট হাতেও ব্যর্থ হন ডানহাতি এই ব্যাটসম্যান।

চোটের কথা বলে বিশ্বকাপের গুরুত্বপূর্ণ ম্যাচে অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে খেলেননি সাইফউদ্দিন। সত্যিই তার চোট আছে নাকি নটিংহ্যামের ব্যাটিং সহায়ক উইকেটে প্রতিপক্ষ অস্ট্রেলিয়া বলেই ভান করছেন মোহাম্মদ সাইফউদ্দিন , এমন এক প্রশ্নে ধোঁয়াশা তৈরি হয়েছে।ফিজিও এখনও ধরতেই পারছেন না সাইফউদ্দিনের সমস্যার বিষয়টা।গণমাধ্যমের এমন খবরে অসন্তুষ্ট বাংলাদেশের প্রধান কোচ স্টিভ রোডর্স। তিনি বিশ্বকাপের গুরুত্বপূর্ণ অধ্যায় এসব খবর তৈরি না করার অনুরোধ করে জানিয়ে বলেছেন, ‘সাইফউদ্দিন সত্যি সত্যি পিঠের ব্যাথায় আক্রান্ত।আফগানদের বিপক্ষে খেলতে পারবেন কিনা সেই বিষয়টা আজ সকালে নির্ধারণ করা হবে।’ সাইফুউদ্দিন সুস্থ না হলে বিকল্প পরিকল্পনা দলের টিম ম্যানেজমেন্ট চিন্তা করে রেখেছেন বলেও তিনি জানান।যদিও বিষয়টা খোলাসা করে কোন মন্তব্য করতে রাজি হননি।

সাউদাম্পটন মূল শহর থেকে প্রায় ৮ কিলোমিটার দূরে উঁচু-নিচু টিলা আর সবুজে ঘেরা পরিবেশে দাঁড়িয়ে ‘দ্য এইজেসভোল ক্রিকেট গ্রাউন্ড’। স্টেডিয়ামের অংশ হয়েই আছে পাঁচ তারকা হিলটন হোটেল। পাশেই বড়সড় গলফ কোর্স। বিশাল এলাকাজুড়ে অবকাঠামোর বিস্তার। এরমধ্যে মূল ক্রিকেট গ্রাউন্ডটাই সবচেয়ে বড়। এবার বিশ্বকাপে এখন পর্যন্ত এতবড় মাঠে খেলেনি বাংলাদেশ। সেন্টার উইকেট থেকে চারপাশের বাউন্ডারির হিসাব করে বাংলাদেশের প্রধান কোচ স্টিভ রোডস বললেন, তারা যেন ফিরে যাচ্ছেন সেই পুরনো দিনে। ১৯৮০-৯০ এর দশকে। যখন কিনা মাঠ থাকত অনেক বড়। হরহামেশাই মারা যেত না চার-ছক্কা।

মাঠের আকারের মতো এইজেসভোলের উইকেটও ইংল্যান্ডের গড়পড়তা উইকেট থেকে কিছুটা আলাদা। এখাকানার উইকেট উপমহাদেশের মতই মন্থর, টার্নও আছে অনেক। রান খুব বেশি একটা হবে না। বল উড়িয়ে না খেলে, দৌড়ে রান নেওয়ার পরিকল্পনা বাংলাদেশের।

সূচিতে বাকি আছে লিগ পর্বের আর তিন ম্যাচ। এই তিন ম্যাচে তিন জয় তো বটেই। বাংলাদেশ কোচ স্টিভ রোডস সেমিফাইনাল, ফাইনালসহ ধরে রেখেছেন পাঁচ ম্যাচ। একের পর এক ম্যাচ জিতে বিশ্বকাপ জেতার মতো বড় স্বপ্নই দেখছেন তিনি।

অন্যদিকে, বিশ্বকাপে এখনও কোন জয় দেখা মেলেনি আফগানিস্তানের ।ভারতের বিপক্ষে ছাড়া বাকী ম্যাচে তো তেমন প্রতিদ্বন্দ্বিতাও করতে পারেনি আফগানরা। তারপরও বাংলাদেশের বিপক্ষে নিজেদেরই ফেবারিট মানছেন দলের অন্যতম সেরা খেলোয়াড় মোহাম্মদ নবি। সাম্প্রতিক পারফরম্যান্স বিচার করে বাংলাদেশকে হালকাভাবে নিচ্ছে না তারা।

বিশ্বকাপে জয়ের খরা বাংলাদেশের বিপক্ষেই ঘোচাতে চান বলেও ইঙ্গিত দেন নবি।তিনি বলেন, ‘এটা ক্রিকেট যেখানে প্রতি ম্যাচেই সেরাটা দিতে হয়। বাংলাদেশ শক্তিশালী দল, বিশ্বকাপের মতো আসরে তাদের হালকাভাবে নেওয়ার সুযোগ নেই।’ আফগান অধিনায়কের আহংকারী বক্তব্য, ‘বাংলাদেশের সাকিব কেন? বাংলাদেশের কোন খেলোয়াড়ই তাদের কাছে হুমকি নয়।’ যদিও রশিদ খান মনে করেন, ‘ আফগান দল বিশ্বকাপে খেলার মত যোগ্যতা রাখে না।’

সবকিছুর সাথে আজকের বৃষ্টির সম্ভাবনা ভাবাচ্ছে বাংলাদেশ দলকে।

ছবিঃ গুগল