হুয়াওয়ের ফোল্ডেবল ফাইভজি স্মার্টফোন

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

সাইফ তনয় (টেক ব্লগার)

বাংলাদেশে প্রদর্শন করা হলো বিশ্বব্যাপী সাড়া জাগানো আলোচিত হুয়াওয়ের ফোল্ডেবল ফাইভজি স্মার্টফোন। বার্সেলোনায় অনুষ্ঠিত এবারের মোবাইল ওয়ার্ল্ড কংগ্রেসে (এমডব্লিউসি) ফোনটি উন্মোচনের পর বিভিন্ন দেশ ঘুরে বাংলাদেশে এসেছে। সম্প্রতি ঢাকার ওয়েস্টিন হোটেলে আলোচিত ফোনটি প্রদর্শন করা হয়। একই দিন হুয়াওয়ের স্মার্টওয়াচ জিটি প্রথমবারের মতো বাংলাদেশে আনুষ্ঠানিকভাবে বাজারে ছাড়ার ঘোষণা দেয় প্রতিষ্ঠানটি। একই সঙ্গে হুওয়াওয়ের নতুন স্মার্টফোন পি৩০ ও পি৩০ প্রো সম্পর্কে ইঙ্গিত দেয় চীনা প্রযুক্তিপণ্য নির্মাতা প্রতিষ্ঠানটি। অত্যধিক নির্মাণ ব্যয় ও নগণ্য বাজার অংশীদারিত্ব সত্ত্বেও ফোল্ডেবল (ভাঁজযোগ্য) স্মার্টফোনেই গুরুত্ব দিচ্ছে চীনা প্রযুক্তি জায়ান্ট হুয়াওয়ে।
হুয়াওয়ে মেট এক্স একই সঙ্গে স্মার্টফোন ও ট্যাবলেট হিসেবে ব্যবহার করা যাবে। এতে রয়েছে নমনীয় ওএলইডি প্যানেল এবং একটি ফালকন উইং মেকানিক্যাল হিং।

ফোনটির পর্দা বাইরের দিকে ভাঁজ করা যাবে। ভাঁজ ছাড়া অবস্থায় এর পর্দা অ্যামোলেড আট ইঞ্চি হবে। আর ভাঁজ করলে এটি একটি স্মার্টফোনের মতো আকার দেয়া যাবে। ফোল্ডেবল ফাইভজি ফোনটির পর্দার রেজ্যুলেশন ২৪৮০*২২০০ পিক্সেল। ফোনটি ফোর সামনের দিকে স্ক্রিন হবে ৬.৬ ইঞ্চি এবং পিছনে ৬.৩৮ ইঞ্চি। পাওয়ার বাটনেই থাকছে ফিঙ্গারপ্রিন্ট। এর পুরম্নত্ব ৫.৪ মিলিমিটার। অতুলনীয় ফালকন উইং মেক্যানিকাল হিংসহ স্মার্টফোনটিতে ব্যবহার করা হয়েছে ফাইভজির সবথেকে অত্যাধুনিক চিপসেট বেলং ৫০০০। হুয়াওয়ের ফাইভজি সার্পোটেড ফোল্ডেবল এ ফোনে ব্যবহার করা হয়েছে লেইকার ক্যামেরা। সেইসাথে থাকবে ক্যামেরা সংক্রান্ত অত্যাধুনিক সব প্রযুক্তি ও ফিচার। মেট এক্স ফোনটিতে বিশ্বে প্রথমবারের মতো ব্যবহার করা হয়েছে ৭ ন্যানোমিটারের ৫জি মডেম বেলং ৫০০০ চিপসেট।

ছবি: গুগল

প্রাণের বাংলায় প্রকাশিত সব লেখা লেখকের নিজস্ব মতামত। লেখা সংক্রান্ত কোনো ধরনের দায় প্রাণের বাংলা বহন করবে না। প্রাণের বাংলার কোনো লেখা কেউ বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করতে পারবেন না তবে সোশ্যাল মিডিয়াতে শেয়ার করতে পারবেন । লেখা সংক্রান্ত কোনো অভিযোগ অথবা নতুন লেখা পাঠাতে যোগাযোগ করুন [email protected]