এন্ড্রয়েডে ডাটা খরচ কমাবে ডাটালি!

এন্ড্রয়েড ফোনের ডাটা খরচ নিয়ন্ত্রণ করার জন্য অনেকেই অনেক পন্থা অবলম্বন করেন। বেশিরভাগ ব্যবহারকারীই মোবাইল ডাটা বন্ধ করে রাখেন অনাকাঙ্ক্ষিতভাবে ডাটা হারানোর ভয়ে। কেননা, ফোনের ব্যাকগ্রাউন্ড ডাটা ম্যানেজ করা অত্যন্ত ঝামেলার একটি কাজ। এটি সহজ করে দেয়ার জন্য গুগল চালু করেছে নতুন একটি এন্ড্রয়েড অ্যাপ ডাটালি। এই অ্যাপটির মাধ্যমে আপনি একদম চোখের সামনে আপনার ফোনের প্রতি মেগাবাইট ডাটা খরচের হিসেব পেতে পারেন। ডাটালি ব্যবহার করে সহজেই পুরো ফোনের যেসকল অংশ ডাটা খরচ করছে তা আলাদা আলাদাভাবে নিয়ন্ত্রণ করা যাবে।
ডাটালি অ্যাপ ইনস্টল করার পর প্রথমেই এটি আপনার ফোনে অ্যাক্সেস চাইবে। অ্যাক্সেস দেয়ার পর ডাটালি অ্যাপের মধ্যে আপনার সকল অ্যাপের লিস্ট দেখতে পাবেন। সেখান থেকে যেকোনো অ্যাপ কিংবা অংশের ডাটা ব্যবহার বন্ধ করে রাখতে পারবেন। তখন যেসব অ্যাপের জন্য তালা চিহ্ন বন্ধ করবেন সেসব অ্যাপ মোবাইল ডাটা ব্যবহার করতে পারবেনা। ডাটালি দিয়ে ডাটা অ্যাক্সেস বন্ধ রাখা অ্যাপ ব্যবহার করতে গেলে স্ক্রিনে নোটিফিকেশন দেখা যাবে যে আপনি এই অ্যাপের জন্য ডাটা বন্ধ রেখেছেন। তখন স্ক্রিনে দেখানো তালা চিহ্নে ক্লিক করলে ডাটা অ্যালাউ করার অপশন আসবে।

ডাটা সেভার চালু করে কোনো অ্যালাউড অ্যাপ ব্যবহারের সময় স্ক্রিনে একটি ছোট বাবল দেখা যাবে, যেখানে লেখা আসবে আপনি সেই নির্দিষ্ট অ্যাপে কতটুকু ডাটা ব্যবহার করেছেন। বাবলে ক্লিক করলে অ্যাপটির জন্য ডাটা সেভার অপশন পাওয়া যাবে।

ডাটালি অ্যাপ ওপেন করলে শুরুর স্ক্রিনেই আপনি দেখতে পারবেন আজ কতটুকু মোবাইল ডাটা ব্যবহার করেছেন। এরপর একটা বাটন থাকবে যাতে ক্লিক করে ডাটা সেভার চালু/বন্ধ করা যাবে। সেখান থেকে ডাটা সেভার চালু করে ম্যানেজ ডাটা বাটন চাপ দিয়ে আপনি সকল অ্যাপের লিস্ট এনে আলাদা আলাদা অ্যাপের জন্য মোবাইল ডাটা আক্সেস চালু বা বন্ধ করতে পারবেন। এছাড়া, ফাইন্ড ওয়াইফাই বাটন ক্লিক করে আপনি আশেপাশের ওয়াইফাই নেটওয়ার্কের খোঁজ পাবেন। পাসওয়ার্ড জানা থাকলে সেগুলোও কানেক্ট করা যাবে।
ডাটালি অ্যাপটির সাইজ খুবই ছোট। এটি আপনার ডিভাইসের ৬ মেগাবাইটের মত স্পেস নেবে। এন্ড্রয়েড ৫ বা তার পরের ভার্সনে চলবে ডাটালি। অ্যাপটি গুগল প্লে স্টোর থেকে এখনই ডাউনলোড করে নিতে পারেন।

সাইফ তনয় (টেক ব্লগার)
ছবিঃ গুগল