আজ থেকে মাঠে গড়াবে ত্রিদেশীয় সিরিজ

আহসান শামীমঃ বাংলাদেশ, জিম্বাবুয়ে আজ মুখোমুখি হচ্ছে মিরপুরে। পিচ ও আবহাওয়ায় ঘরের মাঠে স্পিনিং উইকেট বানিয়ে প্রতিপক্ষকে ঘায়েল করতে জুড়ি নেই বাংলাদেশের। ত্রিদেশীয় সিরিজের আগে মিরপুরের উইকেটে নিজেদের একমাত্র প্রস্তুতি ম্যাচে রান বন্যা বইয়ে দিয়েছেন টাইগার ব্যাটসম্যানরা।কড়া শীতের দিনে পরে বল করলে স্পিনারদের বল গ্রিপ করাতে বেশ সমস্যার পড়তে হতে পারে। সেই কারণেই স্পিনিং উইকেটের সম্ভাবনা নেই বললেই চলে। সন্ধ্যায় শিশিরের বিড়ম্বনা এড়াতে যে কোনো দলই টসে জিতে আগে বোলিংটা  নিতে চাইবে।মাশরিফ চিন্তা ম্যাচে টস জয় নিয়ে।জয় , পরাজয়ের জন্য টস জয়টা খুব গুরুত্বপূর্ণ ।

রবিবার ম্যাচ পূর্ব সংবাদ সম্মেলনে টাইগার অধিনায়ক মাশরাফি বিন মর্তুজা আভাস দিয়েছেন চার পেসার নিয়ে খেলার। পাশাপাশি পেসারদের ওপর আস্থা রাখার কথাও জানিয়েছেন তিনি। পেসারদের সাফল্যের ওপরই দলগত সাফল্য নির্ভর করবে বলে মনে করেন তিনি ।টাইগার শিবিরের জন্য দূঃসংবাদ ইমরুল কায়েস ইন্জুরি মাঠে নামতে পারবেন না। ত্রিদেশীয় সিরিজে ইমরুল ইনজুরির কবলে থাকায় ভাগ্য খুলতে পারে ডানহাঁতি এনামুল হক বিজয়ের। ২০১৫ সালের পর আবার তাঁকে মাঠে দেখা যেতে পারে জাতীয় দলের জার্সি গায়ে।সাকিব নামবেন তিনে আর মাহমুদুল্লাহ রিয়াদ পাঁচে খেলবেন এই তথ্য দিলেন খালেদ মাহমুদ সুজন।এনিয়ে গনমাধ্যমের কাছে তিনি বলেন, সাকিব একজন আগ্রাসী ব্যাটসম্যান। সে অভিজ্ঞ। পরিস্থিতি অনুযায়ী খেলতে পারে। তিন নম্বর পজিশনটা গুরুত্বপূর্ণ। এই কারণে সাকিবকে তিন নম্বর পজিশনে খেলানোর সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে। আগে মাহমুদউল্লাহ রিয়াদকেও বিভিন্ন পজিশনে খেলানো হয়েছে।এখন থেকে সে পাঁচ নম্বর পজিশনে খেলবে।

জিম্বাবুইয়ানরা ঘরের মাঠে লঙ্কানদের ৫-০ ব্যবধানে ওয়ানডে সিরিজ হারিয়েছিল। বাংলাদেশ দলের সাম্প্রতিক পারফরমেন্সও অবশ্য টাইগারদের হয়ে কথা বলছে না। টাইগাররা অক্টোবর ২০১৬ এর পর ১৪ ম্যাচ খেলে মাত্র ৪ ম্যাচে জয়ের দেখা পেয়েছে।২০১৮ সালে হোম সিরিজ দিয়ে শুরু হচ্ছে নতুন বছরের মিশন। তাই এটাকে কাজে লাগাতে বেশ গুরুত্বের সাথে নিচ্ছে সিরিজটা।এমনটাই জানা গেছে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের সভাপতি নাজমুল হাসান পাপন কথায়।এক সংক্ষিপ্ত সাক্ষাৎকারে বিসিবি সভাপতি বলেন, ‘ক্রিকেটাররা চাঙ্গা আছে। আমার বিশ্বাস ভালো কিছু হবে। তাছাড়া এই সিরিজটা আমাদের অস্তিত্বের লড়াই। এখানে আমাদের জয়ের কোনো বিকল্প নেই।’

জিম্বাবুয়ে ক্রিকেট দলের অন্যতম অভিজ্ঞ ক্রিকেটার হ্যামিল্টন মাসাকাদজা। এই মারকুটে ব্যাটসম্যান বাংলাদের বিপক্ষে অনেক ম্যাচ খেলেছেন। তাছাড়া, বাংলাদেশের ঘরোয়া ক্রিকেটেরও নিয়মিত ক্রিকেটার তিনি। ফলে এখানকার আবহাওয়া তার বেশ পরিচিত। জিম্বাবুইয়ান অধিনায়কের তুরুপের তাস হতে পারেন তিনি।

ছবিঃ গুগল