কানে জসিমের অ্যা পেয়ার অফ স্যান্ডেল

সম্প্রতি চলচ্চিত্র নির্মাতা জসিম আহমেদ তুরস্কের হা-কিস আন্তর্জাতিক শর্ট ফিল্ম উৎসবে সেরা পরিচালকের পুরস্কার জিতে নেন তার চার মিনিটের স্বল্পদৈর্ঘ সিনেমা ‘অ্যা পেয়ার অফ স্যান্ডেল’-এর জন্য। এবার তার ছবিটি বিশ্ব চলচ্চিত্রের মর্যাদাসম্পন্ন আয়োজন কান চলচ্চিত্র উৎসবে অংশ নিচ্ছে।

পেয়ার অফ স্যান্ডেল

উৎসবের অফিসিয়াল ওয়েবসাইটের শর্ট ফিল্ম কর্ণারের ক্যাটালগে ছবিটির নাম দৃশ্যমান। মিয়ানমার থেকে বিতাড়িত হয়ে বাংলাদেশে আশ্রয় নেয়া  রোহিঙ্গা শরনার্থীদের বিপর‌যকর অবস্থা নিয়ে তিনি নির্মাণ করেছেন এই স্বল্পদৈর্ঘ সিনেমা।

কানের শর্ট ফিল্ম কর্নারে বিশ্বের বিভিন্ন প্রান্তের ছোট দৈর্ঘ্যের ছবিগুলো দেখানো হয়। এর মাধ্যমে এগুলোর নির্মাতাদের সামনে নতুন দুয়ার খোলে। তারা গোটা পৃথিবীর বিভিন্ন নির্মাতাদের সঙ্গে চিন্তার আদান প্রদান ঘটান সেখানে।

একই সঙ্গে এই ছবিটি জার্মানির ইন্ডিপেন্ডেন্ট ডে ফিল্ম ফ্যাস্টিভ্যালে দুটি ক্যাটাগরিতে প্রতিযোগিতা করবে।

সিনেমাটি কান উৎসবে মনোনীত হওয়ায় আনন্দিত পরিচালক। তিনি জানালেন, ছবিটি তিনি কানের শর্ট ফিল্ম কর্ণারে জমা দিয়েছিলেন। আয়োজকরা যে ছবিটি নির্বাচিত করেছেন তাতে তিনি অবিভূত। আগামী ৫ মে জসিম আহমেদ কান উৎসবে যোগ দেবেন।

আই ফোন দিয়ে শ্যুট করা এই স্বল্পদৈর্ঘ সিনেমাটি তৈরীর ভাবনা তার মাথায় প্রথম আসে টেকনাফের শাহপরীর দ্বীপে স্যান্ডেল হাতে এক অসহায় শিশুকে দাঁড়িয়ে থাকতে দেখে। তাৎক্ষণিক ভাবে তিনি আরো কিছু দৃশ্য তিনি ধারণ করেন তার ফোনের ক্যামেরায়। সেই ফুটেজগুলোই পরে জন্ম দেয় এই সিনেমার।

জসিম আহমেদের আরেকটি স্বল্পদৈর্ঘ্য ছবি ‘দাগ’ অংশ নিয়েছে ৭০তম কান চলচ্চিত্র উৎসবের শর্ট ফিল্ম কর্নারে। এ নিয়ে টানা দ্বিতীয়বার এ আয়োজনে অংশ নিতে যাচ্ছেন তিনি। এছাড়া ইতালির নেপলস মানবাধিকার চলচ্চিত্র উৎসবে প্রতিযোগিতা বিভাগে ও ঢাকা আন্তর্জাতিক শিশু চলচ্চিত্র উৎসবে অংশ নেয় ছবিটি।

বিনোদন ডেস্ক

ছবিঃ সংগ্রহ