জয়ী বাংলাদেশঃ গ্যালারীতে হামলা

আহসান শামীম

শ্রীলংকার বিপক্ষে বাংলাদেশ এক অসাধারণ জয় ছিনিয়ে আনলো। এমন রান তাড়া করে ক্রিকেট দুনিয়ায় এরকম জয়ের নজির আগে ছিল তিনটা , লঙ্কানদের হারিয়ে টাইগারা গড়ল চতুর্থ ইতিহাস। এছাড়াও দুই বল হাতে রেখে ২১৫ রান টাইগারদের জন্য দলীয় সর্বোচ্চ টি-টুয়েন্টি রান।এর আগে ঢাকায় অনুষ্টিত টি-টুয়েন্টি সিরিজে লঙ্কানদের বিপক্ষে টাইগারদের ১৯৩ সর্বোচ্চ রান করার পরও জয়ের মুখ দেখেছিল লঙ্কানরা।ক্রিকেটের রেকর্ড বুকে সর্বোচ্চ রান তাড়া করে জয়ের শীর্ষে অষ্ট্রেলিয়া।

চলতি বছরই অকল্যান্ডে নিউজিল্যান্ডের করা ৬ উইকেটে ২৪৩ রান ৫ উইকেট ও ৭ বল হাতে রেখেই জয় পায় অস্ট্রেলিয়া।২০১৫ সালে জোহার্নেসবার্গে দক্ষিন আফ্রিকার দেয়া ২৩১ রান তাড়া করে ৪ উইকেটের জয় পেয়েছিল ওয়েস্ট ইন্ডিজ। সর্বোচ্চ রান তাড়া করে জয়ের রেকর্ডে ৩ নম্বরে আছে ইংল্যান্ড। এখানেও পরাজিত দলটার নাম দক্ষিণ আফ্রিকা। ২০১৬ সালে দক্ষিন আফ্রিকার দেয়া ২২৯ রানের লক্ষ্য ২ বল ও ২ উইকেট হাতে রেখে পেরিয়ে যায় ইংল্যান্ড।এরপরই বাংলাদেশের নাম সংযুক্ত হলো গতরাতে দুই বল হাতে রেখেই লঙ্কানদের দেওয়া ২১৪ রানের টার্গেট ডিঙ্গিয়ে জয় তুলে নেয় টাইগারা।

তবে এই আলোকিত জয়কে অনেকটাই ম্লান করে দিয়েছে শ্রীলঙ্কার সমর্থকদের আচরণ। শিক্ষিত লঙ্কানরা বিষয়টা সহজে মেনে নিতে পারলেন না।নিদাহাস ট্রফিতে তাদের দেশের পরাজয়ের পর কলম্বোর প্রেমাদাসা স্টেডিয়ামে ন্যাক্কারজনক ঘটনা ঘটেছে গ্যালারিতে। জানা যায়, ম্যাচ শেষে কিছু বাংলাদেশি সমর্থকের ওপর হামলা করেছেন লঙ্কান সমর্থকরা। হুট করে এই আক্রমণের কারণ সম্পর্কে কিছু জানা যায়নি। ধারণা করা যাচ্ছে, বাংলাদেশের বিপক্ষে পরাজয়ের ফলে ক্ষোভের প্রকাশ ঘটিয়েছেন লঙ্কান সমর্থকরা। জানা গেছে, তুহিন নামে গ্যালারিতে একজন টাইগার সমর্থক আহত হয়েছেন।

যাদের ওপর লঙ্কান সমর্থকেরা হামলা করেছেন তারা বাংলাদেশ ক্রিকেট সাপোর্টারস অ্যাসোসিয়েশনের (বিসিএসএ) সদস্য। মূল ঘটনা শুরু হয়েছিলো ম্যাচ শেষে পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানের সময়।এসময় বিসিএসএর এক সদস্য তুহিনের ওপর হামলা চালান কিছু লঙ্কান সমর্থক। এক পর্যায় পরিস্থিতির আরো অবনতি ঘটলে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর হস্তক্ষেপ ঘটে। তাতে উত্তেজনা কমে আসে।

শ্রীলঙ্কা ক্রিকেট বোর্ড (এসএলসি) বিষয়টাকে গুরুত্বসহকারে নেয়া হবে বলে ইতিমধ্যেই দুঃখ প্রকাশ করেছেন।এমন ঘটনার পর টাইগার দলের নিরাপত্তা জোরদার করা হয়েছে।

ছবিঃ ইএসপিএন