ঘরে বসে চুল ঘন করুন…

চুল নিয়ে চিন্তিত এমন মেয়ে খুঁজেই পাওয়া যাবে না। অনেকে আবার চুল ঘন করার জন্য বাজারের কোনো পণ্যই ব্যবহার করতে বাকি রাখেননি।কখনও উপকার পান কখনও হয়তো কাজেই আসেনা।তবে এসব পণ্য মাঝে মাঝে ক্ষতিকরও বটে। চুল ঘন করার জন্য দুটি প্রাকৃতিক উপায় সম্পর্কে জানিয়ে দেই যেগুলোর কোনো পার্শ্ব প্রতিক্রিয়ার কথা চিন্তা না করেই ব্যবহার করতে পারেন। সপ্তাহে ২ দিন সময় বের করে নিয়ে হেয়ার মাস্ক দুটো ব্যবহার করে ফল পেতে পারেন।

অলিভ অয়েল আর ডিম মিশ্রণ : চুল ঘন করার জন্য ডিম ব্যবহার করে আসছেন আমাদের নানী-দাদীরাও। ডিমে আছে প্রচুর পরিমাণে প্রোটিন যা চুল পরা বন্ধ করে। ডিমে আরও রয়েছে সালফার, জিংক, আয়রন, সেলেনিয়াম, ফসফরাস ও আয়োডিন যা মাথায় নতুন চুল গজাতে সাহায্য করে চুল ঘন করে।

কিভাবে তৈরী করবেন: একটি পাত্রে একটি ডিমের সাদা অংশ নিয়ে ১ চা চামচ অলিভ অয়েল ও ১ চা চামচ মধু নিন চুলের দৈর্ঘ্য অনুযায়ী অলিভ অয়েল ও মধু নিবেন। এবার এগুলো খুব ভালো করে মেশান। যখন  পেস্টের মত হয়ে যাবে তখন মাথার ত্বকে আলতো ঘষে মিশ্রণটি লাগিয়ে ফেলুন। ২০ মিনিট পর প্রথমে ঠাণ্ডা পানি ও পরে শ্যাম্পু দিয়ে চুল ধুয়ে ফেলুন।

মেহেদী পাতা ও সরিষার তেল  মিশ্রণ: আমরা সাধারণত চুলে সরিষার তেল একেবারেই ব্যবহার করি না। কিন্তু চুলের গোঁড়া মজবুত করে তুলতে সরিষার তেল  বিশেষ ভাবে কার্যকর। চুল পড়া রোধ করে সরিষার তেল ।  পাশাপাশি মেহেদী পাতা নতুন চুল গজাতে সাহায্য করে। ফলে চুল ঘন করতে এগুলো বেশ উপকারী।

কিভাবে তৈরী করবেন: ২০০ গ্রাম সরিষার তেল সসপ্যানে নিয়ে চুলায় বসিয়ে দিন। এবার এতে ১ কাপ পরিমাণ মেহেদী তাজা পাতা দিয়ে জ্বাল দিতে থাকুন। মেহেদী পাতা পুড়ে কালো হয়ে গেলে  চুলা থেকে নামিয়ে ছেঁকে ঠাণ্ডা করে নিনেএবার একটা এয়ার টাইট বোতলে এই তেল সংরক্ষণ করুন।  সপ্তাহে ৩ দিন এই তেল  চুলে লাগান। সব চাইতে ভালো ফল পাবেন সারারাত চুলে তেল লাগিয়ে রেখে সকালে সাধারণভাবে শ্যাম্পু করে চুল ধুয়ে ফেললে।

ছবি: অধরা খান সৌজন্যে