হায়দ্রাবাদের অধিনায়কত্ব পেলেন না সাকিব

আহসান শামীম

বল টেম্পারিংয়ের দায়ে এক বছরের জন্য নিষিদ্ধ হওয়ার পাশাপাশি আইপিএল থেকে বাদ পরলেন স্মিথ আর ওয়ার্নার।বল টেম্মারিংয়ের পর ক্রিকেট বিশ্বের কাছে ক্ষমা চাইলেন, বল বিকৃতির মূল হোতা ওয়ার্নার।এরপরই সানরাইজার্সের অধিনায়কত্ব প্রশ্নে শুরু হয় জল্পনা কল্পনা।সেই সবকিছুর অবসান ঘটিয়ে অধিনায়কের নাম ঘোষণা করল সানরাইজার্স হায়দ্রাবাদ। ডেভিড ওয়ার্নারের পরিবর্তে আসন্ন আইপিএল মৌসুমে অরেঞ্জ আর্মিদের নেতৃত্ব দেবেন কিউই অধিনায়ক কেন উইলিয়ামসন। তবে গত কয়েকদিনে মিডিয়ায় এই অধিনায়কত্ব সাকিব আল হাসান পাচ্ছেন এমন গুঘ্জন শোনা যাচ্ছিল।

এই ঘোষনার পরপরই সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম টুইটা বার্তায় উইলিয়ামসন বিষয়টা নিশ্চিত করেন। টুইটের ডানহাতি এই ব্যাটসম্যান জানান, “আসন্ন আইপিএল মৌসুমে আমি হায়দ্রাবাদের অধিনায়ক হিসেবে দায়িত্ব পেয়ে উচ্ছ্বসিত তারা আমাকে এই দায়িত্ব দিয়েছে। আমি মুখিয়ে আছি তাদের সঙ্গে কাজ করার জন্য। জিনিষটা চ্যালেঞ্জিং হলেও আমি প্রস্তুত।”

অজি অধিনায়ক স্মিথ পার্শ্বনায়ক থেকে নায়ক, অতঃপর খলনায়ক হলেন ক্রিকেট বিশ্বে ।দক্ষিন আফ্রিকা থেকে বিদায় নিয়ে দেশে ফেরার পথে দক্ষিন আফ্রিকার নিরাপত্তারক্ষীদের আচরন দেখে মনে হয়েছে স্মিথ একজন খুনী। সামাজিক নেটওয়ার্কে স্মিথের প্রতি এমন আচরনে প্রতিবাদের ঝড় বইছে।স্মিথের পরিবর্তে রাজস্থান রয়্যালসে’র নেতৃত্ব দেওয়া হয় আজিঙ্কা রাহানকে।

আইপিএল খেলতে না পারায় স্মিথ ওয়ার্নারা ব্যাক্তিগত ভাবে প্রত্যেকেই ৩১ কোটি টাকা ক্ষতির মুখে।এছাড়াও ব্যাক্তিগত সবার স্পন্সাররা বাতিল করছেন চুক্তি।আর সবচেয়ে বড় ক্ষতির মুখে পরেছে খোদ ক্রিকেট অস্টেলিয়া।নৈতিকতার অবক্ষয়ের জন্য ক্রিকেট অষ্ট্রেলীয়াকে আর কেউ স্পন্সর করতে রাজী নন।পুরানো স্পন্সাররাও চুক্তি বাতিলের নোটিশ জারী করেছেন।

এদিকে ওয়ার্নারে জায়গায় হায়দ্রাবাদ দল শ্রীলংকার কুশল পেরেরা আর বাংলাদেশের ওপেনার তামিম ইকবালের সাথে যোগাযোগ অব্যাহত রেখেছেন।এদের মধ্যে একজন বা দুজনকেই দেখা যেতে পারে সানরাইজার্স হায়দ্রাবাদ দলে।

ছবিঃ গুগল