বিশ্বের সবচেয়ে শক্তিশালী এন্ড্রয়েড স্মার্টফোন

সাইফ তনয় (টেক ব্লগার)

তাইওয়ানে প্রযুক্তি বিশ্বের অন্যতম বড় মিলনমেলা কম্পিউটেক্স ২০১৮তে আসুস নিয়ে এলো তাদের গেমিং মোবাইল ডিভাইস আরওজি (বা রগ) ফোন। ফোনটির নাম আসুসের গেমিং ব্র্যান্ড রিপাবলিক অব গেমার্স বা আরওজি থেকেই নামকরণ করা হয়েছে।
কাগজে কলমে স্পেসিফিকেশনের বিচারে এই মুহূর্তে এটিই পৃথিবীর সবচেয়ে শক্তিশালী ফোন বলা যায়।
এর আগে রিলিজ পাওয়া রেজার ফোনের সঙ্গে প্রতিযোগিতা করতেই এটা বাজারে এসেছে। মোবাইল গেমিং ইন্ডাস্ট্রির উন্নতির ফলে মোবাইলে গেইম খেলার চাহিদা দিন দিন বেড়েই চলেছে। এরই ধারাবাহিকতায় অনেক কোম্পানিই গেমিং ফোনের দিকে ঝুঁকছে। রেজার, শাওমির পর আসুসের এই ফোন মোবাইল গেমিংয়ের সম্ভাবনার কথাই আবার মনে করিয়ে দিচ্ছে।

রেজারের পর এটাই দ্বিতীয় ডিভাইস যাতে ৯০ হার্জ এর ডিসপ্লে ব্যবহৃত হয়েছে। এই ডিসপ্লে গেম এর গ্রাফিক্সে এক নতুন মাত্রা দিবে। প্রতিটা ফ্রেম খুব দ্রতগতিতে রিফ্রেশ হবে তাই গ্রাফিকস খুব স্মুদ লাগবে।
আর এটাতে পাওয়ার দিচ্ছে স্ন্যপড্রাগন ৮৪৫ এর একটি ওভারক্লক করা ভার্সন। এটার গতি ২.৯৬ গিগাহার্টজ পর্যন্ত। তাই বুঝাই যাচ্ছে যে এই স্পেশাল ৮৪৫ চিপটি বাজারে থাকা অন্যান্য ৮৪৫ চিপের ফোনের চেয়ে ভালো পারফর্ম করার কথা। তবে নরমাল টাস্কে পার্থক্য খুব একটা চোখে পড়বে না।

আবার নরমাল ৮৪৫ চিপ এর সম্পূর্ণ পোটেনশিয়াল ব্যবহার করার মত গেইমও এন্ড্রয়েডের জন্য খুব বেশি নেই। সেখানে ওভারক্লকিং গেমিংয়ে কতটা ইমপ্রুভমেন্ট আনবে সেটা রিয়েল লাইফ টেস্টিং এর আগে বলা যাবে না।
ফোনটিতে থাকবে ৮ গিগাবাইট র‍্যাম ও ১২৮ কিংবা ৫১২ গিগাবাইট স্টোরেজ। ফোনের ক্ষেত্রে এখনো পর্যন্ত ৮ গিগাবাইটের বেশি র‍্যাম ও ৫১২ জিবির বেশি স্টোরেজ কোন কোম্পানিকে দিতে দেখা যায় নি। তাই এদিক দিয়ে রগ ফোনের কনফিগারেশন সর্বোচ্চ মানের বলেই আমার জানামতে বলতে পারি।

৬ ইঞ্চি ফুল এইচডি (২১৬০ x ১০৮০) এমোলেড স্ক্রিনের আরওজি ফোনটির দুই পাশে ফ্রন্ট ফেসিং স্টেরিও স্পিকার সিস্টেম আছে। সাথে আবার ট্র্যাডিশনাল হেডফোন জ্যাক ও দুটি টাইপ-সি পোর্ট আছে। তাই কানেকটিভিটির দিক থেকে এটা একটা ট্রু গেমিং ফোন। ৪০০০ মিলি অ্যাম্প এর ব্যাটারি আছে আসুস রগ ফোনটিতে।

ডিভাইসটির বডির চারপাশে আছে প্রেসার সেন্সর যার ফলে ফোনটি হাতে নিয়ে চাপ দিলে এটা এক্স মোডে প্রবেশ করবে। এটি অন্যান্য ফোনের গেম মোড এর মতই একটি ফিচার। এর ফলে ফোনটির থিম লাল রং ধারণ করবে ও সব ব্যাকগ্রাউন্ড টাস্ক বন্ধ করে চিপসেটকে ওভারক্লক করবে। তখন ফোনটির পুরো ক্ষমতা গেমিংয়ে ব্যবহার করা যাবে।
আসুস রগ ফোনের সাথে বেশ কিছু এক্সেসরিজের ঘোষণাও দিয়েছে এর নির্মাতা প্রতিষ্ঠান। ডিভাইসটির সাথে এরো-একটিভ কুলার নামে আলাদা কুলিং ফ্যান লাগিয়ে নেওয়া যায়। তবে এক্সেসরিটি আলাদা কিনতে হবে।

টুইন ভিউ ডক নামের আরেকটি এক্সেসরি রগ ফোনের সেকেন্ড স্ক্রিন হিসেবে কাজ করতে পারবে এবং পাশাপাশি এটাতে ৬০০০ মিলি এম্প এর ব্যাটারি থাকবে ব্যাকাপ হিসেবে। গেম খেলার সময় চ্যাট করার ক্ষেত্রে এই সেকেন্ড স্ক্রিন এক্সেসরি ভালোই সুবিধা দিবে। ফোনটি বড় ডিসপ্লের সাথে যুক্ত করে পিসির মতও ব্যবহার করা যাবে।

এন্ড্রয়েড ৮.১ ওএস চালিত এই ফোনটির পেছনে দুটি ক্যামেরা (১২+৮ মেগাপিক্সেল), এবং সামনের দিকে ৮ মেগাপিক্সেল সেলফি ক্যামেরা আছে। আর হ্যাঁ, পেছনের দিকে ফিঙ্গারপ্রিন্ট সেন্সরও দেয়া হয়েছে। থাকছে ৪০০০ এমএএইচ ব্যাটারি।

আসুস আরওজি ফোনটি এই বছরের তৃতীয় কোয়ার্টারে বাজারে আসবে বলে মনে করা হচ্ছে। তবে দাম কত হবে এটা এখনও ঘোষণা করেনি আসুস।

ছবিঃ আসুস